1. [email protected] : শেয়ার সংবাদ প্রতিবেদক : শেয়ার সংবাদ প্রতিবেদক
  2. [email protected] : শেয়ারসংবাদ.কম : শেয়ারসংবাদ.কম
  3. [email protected] : Zahir Islam : Zahir Islam
  4. [email protected] : muzahid : muzahid
  5. [email protected] : nayan : nayan
  6. [email protected] : khadija : khadija khadija
সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ০৫:৩২ অপরাহ্ন

 ইতিবাচক সিদ্ধান্তে প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন ডিএসই চেয়ারম্যানের

  • আপডেট সময় : রবিবার, ১২ মে, ২০২৪
dse

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) দীর্ঘদিনের লক্ষ্য ছিল সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্তি৷ অনেক চেষ্টার পরও সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোকে তালিকাভুক্ত করতে পারেনি ডিএসই৷ অবশেষে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পুঁজিবাজারের মাধ্যমে অর্থনীতিকে গতিশীল করতে সুদূরপ্রসারী পরিকল্পনা নিয়ে পুঁজিবাজারে সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলো তালিকাভুক্তির যে নির্দেশনা প্রদান করেছেন তার জন্য ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু প্রধানমন্ত্রীকে আন্তরিক অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জানিয়েছেন৷

গত ০৯ মে শেরেবাংলা নগরের পরিকল্পনা কমিশনে এনইসি সম্মেলন কক্ষে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় সরকারি বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে পুঁজিবাজারে আনার নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ ভালো শেয়ারের সরবরাহ বাড়িয়ে দেশের শেয়ারবাজারকে আরো শক্তিশালী করতে অর্থ মন্ত্রণালয়ের অর্থবিভাগকে সম্ভাবনাময় রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন সরকারি সংস্থা ও সরকারি কোম্পানিগুলোকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত করার কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীর এই নির্দেশনা পুঁজিবাজারের জন্য অত্যন্ত ইতিবাচক ও সময়োপযোগী৷


এ বিষয়ে ডিএসই`র চেয়ারম্যান ড. হাসান বাবু বলেন, ওই নির্দেশনা বাস্তবায়ন হলে পুঁজিবাজারে ভালো কোম্পানি তালিকাভুক্তির মাধ্যমে পুঁজিবাজারের গতিশীলতা বৃদ্ধির পাশাপাশি সার্বিক অর্থনীতিতে গতি আসবে এবং পুঁজিবাজার দেশী-বিদেশী বিনিয়োগ আকৃষ্ট করবে, যা পুঁজিবাজারের টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিত করবে৷ পুঁজিবাজারকে ঘিরে সরকারের এই ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি ও মনোভাবের ফলে দেশের শিল্পায়নের গতি ত্বরান্বিত হওয়ার মাধ্যমে পুঁজিবাজার দেশের অথনৈতিক উন্নয়নে আরও বেশি কার্যকরী ভূমিকা রাখতে সক্ষম হবে৷

পুঁজিবাজারকে সম্প্রসারিত ও গতিশীল করার জন্য পুঁজিবাজারের প্রতি সরকারের বিশেষ গুরুত্বারোপকে তিনি বিশেষভাবে অভিনন্দন জানান৷

ডিএসই`র চেয়ারম্যান আরও মনে করেন, ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জও পুঁজিবাজারকে অধিকতর গতিশীল করতে অবকাঠামোগত ও প্রযুক্তিগত সকল ধরণের উন্নয়ন কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে৷ একইসাথে তিনি বলেন, বিভিন্ন গ্রুপ অব কোম্পানিজ এবং আরএমজি সেক্টরের গ্রীণ ফ্যাক্টরীগুলো পুঁজিবাজারে অন্তর্ভুক্তির জন্য ডিএসই কাজ করে যাচ্ছে৷

পরিশেষে, তিনি বিশ্বাস করেন দীর্ঘমেয়াদী মূলধন সংগ্রহের অন্যতম মাধ্যম হলো দেশের পুঁজিবাজার। তাই উন্নয়ন অগ্রযাএার স্মার্ট বাংলাদেশ বাস্তবায়নে দেশের পুঁজিবাজার সরকারকে কাঙ্খিত লক্ষ্যে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারবে বলে তিনি মনে করেন৷

শেয়ার দিয়ে সবাইকে দেখার সুযোগ করে দিন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ